সুমন সেনের পরিচালনায় আসতে চলেছে স্বল্প দৈর্ঘের চলচ্চিত্র “অ্যাক্সিডেন্ট”,

Poster copy“একটি ঘৃন্য গল্প” – যা দেখায় এম.এম.এস. ও প্রী-ম্যারিটাল অ্যাফেয়ার্স-এর এক কঠিন বাস্তব।  (তানিয়া সরকার)

মেয়েদের তো একটাই মন, আর সেই মনের সবটা জায়গা জুড়ে বিরাজ করে তার প্রাণপুরুষ। কিন্তু যদি কখোনো সে ব্যাথা পায় তার প্রাণপুরুষের কাছ থেকে, প্রত্যাখ্যান হয় তার ভালোবাসা – তখন কি করা উচিৎ তার? তরুন লেখন সুমন সেনের লেখায় “একটি ঘৃন্য গল্প” – যা ইতিমধ্যে সারা ফেলেছে পাঠক মহলে। (একবিংশ থেকে পড়ুনঃ http://www.ekabinsha.org/books-literary-works/একটি-ঘৃন্য-গল্পঅনু-গল্/)

কয়েকদিনের পরিচিত ভালোবাসার মানুষটির জন্য কারুর কি ভুলে যাওয়া উচিৎ তাদের মা-বাবার এত বছরের ভালোবাসা? এটা যেন ইদানিং কালের এক কঠিন বাস্তব – ভালোবাসার মানুষের জন্য তরুন-তরুনী ভুলে যায় তার মা-বাবার ত্যাগ, ভালোবাসা, স্বপ্ন! এবং অনেকসময় শেষ করে দিতে উদ্যত হয় তাদের মহামূল্যবান জীবন। কোনো কোনো সময় দেখা যায় – মা-বাবার একটিই সন্তান যে এই ভয়ঙ্কর পথ বেছে নেয়, একবার ভাবেও না তার মৃত্যুর পর কি হবে সেই মানুষগুলোর, কে অবলম্বন হবে তাদের? এম.এম.এস. ও প্রী-ম্যারিটাল অ্যাফেয়ার্স কবলিত যুগের এমনই একটা অভিজ্ঞতা জানতে গল্পটি পড়ে নিন উপরের লিঙ্কে ক্লিক করে, এবং আপনার মূল্যবান মতামত দিন।

ইতিমধ্যে লেখক সুমন সেনের পরিচালনায় আসতে চলেছে স্বল্প দৈর্ঘের চলচ্চিত্র “অ্যাক্সিডেন্ট”, যেটি “একটি ঘৃন্য গল্প”-এর ধারাবাহিকতাকে সম্প্রসারিত করে তার পরের অংশ দেখাবে। চলচ্চিত্রটি হতে চলেছে একটি ‘ফাউন্ড ফুটেজ’ ধর্মীয় ছবি। যার পোষ্টার প্রকাশ পেয়েছে ইতিমধ্যে।

সুমন সেন

সুমন সেন

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *