—–জিন—–

Demon_jinnএক দম্পতি কোনও এক মাঠে গিয়ে গলফ খেলছিল । হঠাৎ একটা শট এসে কাছাকাছি একটা বাড়ির কাঁচে লাগে ও ভেতরে একটা কাচের জার ভেঙ্গে যায় । দুজনেই তাড়াতাড়ি সেখানে এসে দেখে এক বড়সড় চেহারার মানুষ দাঁড়িয়ে আছে ।
স্বামী বলে ওঠে: – মাফ করবেন । আমার দোষে এটা ভেঙ্গে গেছে । এর জন্যে আমি ক্ষতিপূরণ দিতে রাজি আছি।
আমি আপনাদের ধন্যবাদ জানাচ্ছি – ওটা ভাঙ্গার জন্যে। ওখানে আমি দশ হাজার বছর ধরে আটকা পরে আছি।
তার মানে ! এখানে আপনি দশ হাজার বছর বন্দী আছেন ! স্বামী তো থ মেরে গেছে । বলে কি লোকটা – পাগল নাকি !
হ্যাঁ, আমি জিন । এই কাচের জারটার মধ্যে আটকা ছিলাম – দশ হাজার বছর । আপনারা ছিলেন বলেই আমার মুক্তি ঘটলো ।

– জিন বেশ নাটকীয়ভাবে বলতে লাগল – এখন আপনারা আদেশ করুন – কী চাই ! আগে আপনি বলুন স্যর – আপনার কী চাই !

আপনি জিন ! স্বামী যেন একটু সাহস পেল । – আচ্ছা – তবে আমাকে এক কোটি টাকা দিন তো !
এক কোটি টাকা ! – জিন হাতদুটো ওপর দিকে তুলে তুড়ি মারল । – ঠিক আছে । আপনার একাউন্টে টাকা এসে গেছে ।

এবার আপনি বলুন ম্যাম – আপনার কী চাই !
আমার – আমার ! – স্ত্রী আমতা আমতা করে বলল – রাজারহাটে একটা তিন বেডরুম ফ্ল্যাট !
জিন আবার হাত ওপর দিকে তুলে তুড়ি দিল । – ঠিক আছে । হয়ে গেছে । আপনার বাড়িতে চিঠি এসে যাবে কাল সকালে ।

আপনাকে কি বলে যে ধন্যবাদ দোবো ! – স্বামী একেবারে গদগদ !
ধন্যবাদ দিতে হবে না । এটাই আমার কাজ ! – তবে আমারও কিছু চাই । দশ হাজার বছর বন্দী ছিলাম তো ! – জিন ওদের দিকে জিজ্ঞাসু ভাবে তাকাল ।

হ্যাঁ হ্যাঁ নিশ্চয়ই ! বলুন কি চাই আপনার ? – স্বামী বলে উঠল।

আপনার বউকে চাই।
স্বামী আর কি করে – বউকে অনুরোধ করতে লাগল – দেখ, জিন আমাদের এক কথায় এত টাকা আর ফ্ল্যাট দিয়ে দিল । আমরা তো ওর জন্যে এইটুকু করতেই পারি !
বউ আর কি করে – জিনের সঙ্গে বাড়ির ভেতরে গেল ।
যেতে যেতে বউ জিনকে বলল – দেখলে কান্ডটা ! টাকার জন্যে আমার স্বামী আমাকে তোমার সঙ্গে আসতে দিল । এই আমাদের সাত পাকে বাঁধা বিয়ে !
তার চেয়েও বড় কথা – তোমার স্বামীটি এখনও বিশ্বাস করে যে জিন বলে কিছু আছে ! – জিন হা হা করে হেসে উঠল !

D0F76A58D01222109615530422272_3214f39672b.4.1

 

download

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *