এই সপ্তাহের বই- আলবার্ট কামু(আলবেয়ার কামু) রচিত কালজয়ী উপন্যাস, “আউটসাইডার”

cover2মা মারা গেছেন আজ। হয়তো গতকাল, আমি ঠিক জানি না।” এভাবেই শুরু হয় ‘দি আউটসাইডার’ উপন্যাসটি। প্রধান চরিত্রের দেওয়া প্রথম উক্তিটি বিভিন্নভাবে অগণিতবার ব্যবহৃত হয়ে বিখ্যাত হয়ে আছে সাহিত্য সমাজে। দর্শনভিত্তিক এ উপন্যাসটির ফরাসি নাম লেত্রঁজে (L’Étranger) । ইংরেজিতে ‘দ্য স্ট্রেইনজার’ নামটিও প্রচলিত। ‘দি আউটসাইডার’ একটি গভীর তত্ত্বভিত্তিক উপন্যাস, যেখানে জীবনের অযৌক্তিকতা (absurdism) ও অস্তিত্ববাদকে (existentialism) উপস্থাপনা করা হয়েছে অত্যন্ত সহজ এবং বাস্তবভিত্তিক জীবন দিয়ে। মানুষ হিসেবে জীবনের তাৎপর্যের অনুসন্ধান করা কতটুকু সার্থক তা বিশ্লেষণ করা হয়েছে বিশ্বাসযোগ্য দৃষ্টান্ত ও উপমা দিয়ে।

মরসোঁ (Meursault) নৈতিকতা ও অনুভূতিহীন এক নায়ক, যার মুখ দিয়ে লেখক বলিয়েছেন জীবন সম্পর্কে তার দৃষ্টিভঙ্গির কথা। বিষয়ের বিচারে উপন্যাসের ফরাসি শিরোনামই যথার্থ, যার অর্থ অপরিচিত বা অচেনা বা ভিনদেশী। নায়ক মরসোঁ সত্যিই অচেনা এক মানুষ। আমাদের সমাজে মরসোঁ’র মতো ব্যক্তি পছন্দনীয় নয়। সমাজ তাদেরকে একঘরে করেই রেখেছে যুগ যুগ ধরে। কখনও কখনও করেছে বাকরুদ্ধ অথবা নিপীড়ন অথবা হনন! অথচ তাদের জীবন ও দর্শন দিয়ে যে বিমূর্ত সত্যকে উপস্থাপন করেছেন তা বুঝার চেষ্টা ক’জনে করে?

আলবার্ট কামুর( আলবেয়ার কামু) এই কালজয়ী উপন্যাসটি বিভিন্ন ভাষা সহ বাংলাতেও অনুবাদ হয়েছে।

*প্রকৃত নাম: লেত্রঁজে (L’Étranger)

*ইংরেজি/পরিচিত নাম: The Outsider/ The Stranger

*মূল ভাষা: ফরাসি

*লেখার সময় ও স্থান: ৪০এর দশক, ফ্রান্স

*প্রকাশের সময় ও প্রকাশক: ১৯৪২, লাইব্রেরি গালিমার্দ

*সাহিত্যের প্রকার (type): উপন্যাস

*লেখার ধরণ (genre): অস্তিত্ববাদী, অপরাধ বিষয়ক লেখা

*লেখার পটভূমি: আলজেরিয়া, দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের কিছু পূর্বে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *